তামিলদের স্বাধীনতা আন্দোলনের প্রতি ইয়াসিন মালিকের সমর্থন

রয়টার্স « আগের সংবাদ
পরের সংবাদ» ১৯ মে ২০১৩, ২১:২৪ অপরাহ্ন

কাশ্মীরি স্বাধীনতাকামী নেতা ইয়াসিন মালিক দ্ব্যর্থহীন কণ্ঠে তামিলদের স্বাধীনতা আন্দোলনের প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন। শনিবার তামিলনাড়ুর এ শহরে এলটিটিইর শীর্ষ নেতা ভেলুপিল্লাই প্রভাকরণের চতুর্থ মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে তামিলবিষয়ক এক সেমিনারে ভাষণ দানকালে তিনি এ সমর্থন প্রকাশ করেন। এই প্রথম কোনো কাশ্মীরি নেতাকে তামিলনাড়ুতে স্পর্শকাতর তামিলা ইস্যুতে আলোচনার জন্য আমন্ত্রণ জানানো হলো। দ্য টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবরে একথা বলা হয়। লিবারেশন টাইগার্স অব তামিল ইলমপন্থী (এলটিটিই) একটি গ্রুপ না’ম তামিলার আয়োজিত এ সমাবেশে ইয়াসিন মালিক বলেন, শ্রীলঙ্কা সরকার শক্তি প্রয়োগে এলটিটিইকে নির্মূল করতে পারে। তবে পৃথক তামিল রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠায় তাদের স্বপ্নকে নয়, তামিল ইলম বা স্বাধীন তামিল রাষ্ট্র প্রত্যেক ও প্রতিটি তামিলের চূড়ান্ত লক্ষ্য।
তিনি দুঃখ করে বলেন, ভারত এ দ্বীপ দেশে সামরিক হস্তক্ষেপ করেও তামিল গণহত্যা বন্ধে ব্যর্থ হয়। শ্রীলঙ্কায় শান্তি পুনরায় শান্তি প্রতিষ্ঠা এবং গৃহযুদ্ধের চূড়ান্ত পর্বে এলটিটিইর সঙ্গে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের মধ্যস্থতার প্রচেষ্টা বানচাল করার জন্য তিনি শ্রীলঙ্কান সরকারের কঠোর সমালোচনা করেন। তিনি বর্ণবৈষম্য ও গণহত্যাকে প্রশ্রয়দানকারী দেশগুলোর বিরুদ্ধে প্রতিবাদে এগিয়ে আসার জন্য সবার প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানান।
ইয়াসিন মালিক বলেন, ভারতীয় সেনাবাহিনীর নৃশংসতার শিকার লোকদের সহায়তা করতে তিনি রাজস্থান, কাশ্মীর ও দিল্লি কারাগারে কয়েক বছর কাটিয়েছেন। ভারতের কোনো রাজ্য কাশ্মীরি জনগণের সঙ্গে সংহতি প্রকাশ করেনি। কাশ্মীরি জনগণ বছরের পর বছর দুর্ভোগ পোহাচ্ছে।
এদিকে মিয়ানমার সরকারকে তাদের পুনর্গঠনমূলক কাজ চালিয়ে যেতে উত্সাহিত করার জন্য যুক্তরাষ্ট্র ২০১৪ অর্থবছরে দেশটিকে ৭৫.৪ মিলিয়ন ডলারের অনুদান দেয়ার প্রস্তাব দিয়েছে।
এই অর্থ ২০১২ অর্থবছরের তুলনায় ২৮.৮ মিলিয়ন ডলার বেশি। তবে কয়েকজন আইন প্রণেতা ওবামা প্রশাসনের এমন সিদ্ধান্তে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।
তাদের মতে, মিয়ানমারকে দেয়া যুক্তরাষ্ট্রের এই বর্ধিত অনুদান সময়োপযোগী নয়।
গত কয়েক মাস ধরে মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলমানদের দুর্দশা এবং রাজনৈতিক বন্দিদের আটক রাখার কারণেই তারা এই মত পোষণ করেন।
এই প্রসঙ্গে, মিয়ানমারে চলতে থাকা পুনর্গঠনমূলক কাজগুলোকে সমর্থন জানিয়ে মার্কিন রাজনীতিবিদ স্টিভেন জোসেফ শ্যাবট বলেছেন, ‘আগামী সপ্তাহে রাষ্ট্রপতি থেইন সেইনের হোয়াইট হাউস সফর সম্ভবত খানিকটা সময়োপযোগী নয় বলে মনে করি আমি।’

সাপ্তাহিকী


উপরে

X