সংসদের ১৬তম অধিবেশন ২৭ জানুয়ারি : হরতাল বন্ধে বিল আসছে

সংসদ রিপোর্টার « আগের সংবাদ
পরের সংবাদ» ০৭ জানুয়ারী ২০১৩, ১২:১৪ অপরাহ্ন

চলতি নবম জাতীয় সংসদের ষোড়শ অধিবেশন বসছে আগামী ২৭ জানুয়ারি রোববার। ওইদিন বিকাল সাড়ে তিনটায় অধিবেশন শুরু হবে। রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমান সংবিধানের ৭২ (১) অনুচ্ছেদ অনুযায়ী গতকাল এ অধিবেশন আহ্বান করেছেন। এটি হবে নতুন বছেরর (২০১৩ সাল) প্রথম অধিবেশন। সেই হিসেবে অধিবেশনের উদ্বোধনী দিনে রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমান ভাষণ দেবেন। এ অধিবেশনে বিরোধী দলের যোগ দেয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে, এখনো পর্যন্ত দলীয়ভাবে কোন সিদ্ধান্ত হয়নি। সংসদের চলতি অধিবেশনে হরতাল বন্ধের বিল আসছে বলে জানা গেছে।
গত ২৯ নভেম্বর সংসদের ১৫তম অধিবেশন শেষ হয়। ‘সংসদের এক অধিবেশনের সমাপ্তি ও পরবর্তী অধিবেশনের প্রথম বৈঠকের মধ্যে ষাট দিনের অতিরিক্ত বিরতি থাকিতে পারিবে না’- এ হিসেবে ষাট দিন পূর্ণ হবার দুইদিন আগেই নতুন অধিবেশন বসছে।
সাংবিধানের ৭৩ (২) ধারা মতে প্রত্যেক সাধারণ নির্বাচনের পর প্রথম অধিবেশনের সূচনায় এবং প্রত্যেক বছরের প্রথম অধিবেশনের সূচনায় রাষ্ট্রপতি সংসদে ভাষণ দান করবেন। সংবিধানের এ বিধান অনুযায়ী নতুন বছরের প্রথম অধিবেশন হওয়ায় রাষ্ট্রপতি এতে ভাষণ দেবেন। বর্তমান নবম সংসদের শেষ বছর হওয়ায় রাষ্ট্রপতির এবারের ভাষণই হবে তার শেষ ভাষণ।
প্রধান বিরোধী দল বিএনপিসহ চারদলীয় জোটের পক্ষ থেকে আসন্ন এ অধিবেশনে যোগ দেয়া নিয়ে এখনও আনুষ্ঠানিক কোনো ঘোষণা আসেনি। এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিরোধী দলীয় চীফ হুইফ জয়নুল আবদীন ফারুক আমার দেশকে বলেন, সংসদ অধিবেশনে যোগ দেয়ার ব্যাপারে দলীয়ভাবে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি। রাষ্ট্রপতি অধিবেশনের আহ্বান জানিয়েছেন। এরপর স্পিকার আমাদেরকে চিঠি দিয়ে জানাবেন। স্পিকারের চিঠি পেলে দলীয় ফোরাম ও সংসদীয় দলের সঙ্গে আলাপ আলোচনা করে আমরা সিদ্ধান্ত জানাব।
বিএনপি নেতৃত্বাধীন চারদলীয় জোটের সদস্যরা সর্বশেষ গত বছরের ১৮ মার্চ সংসদে আসেন। এরপর ওই অধিবেশন থেকেই তারা আবার সংসদ বর্জন করে আসছে। বিএনপির দলীয়ভাবে সংসদে অনুপস্থিতি ৫০ কার্যদিবস। উল্লেখ্য, ২০০৯ সালের ২৫ জানুয়ারি চলতি ৯ম জাতীয় সংসদের যাত্রা শুরু হয়।

প্রথম পাতা এর আরও সংবাদ

সাপ্তাহিকী


উপরে

X