Amardesh
আজঃঢাকা, শনিবার ২৪ নভেম্বর ২০১২, ১০ অগ্রহায়ণ ১৪১৯, ৯ মহররম ১৪৩৪ হিজরী    আপডেট সময়ঃ রাত ১২.০০টা
 
 সাধারণ বিভাগ
 বিশেষ কর্ণার
 শোক ও মৃত্যুবার্ষিকী
 সাপ্তাহিক
 
আবহাওয়া
 
 
আর্কাইভ: --
 

স্কটল্যান্ড আ.লীগের কাউন্সিলে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ : আহত ৩

লন্ডন প্রতিনিধি
« আগের সংবাদ
পরের সংবাদ»
বুধবার শেষরাতে এডিনবরায় অনুষ্ঠিত হয় স্কটল্যান্ড আওয়ামী লীগের কাউন্সিল অধিবেশনে নবগঠিত কমিটি নিয়ে বিরোধের ফলে দু’পক্ষের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে তিন নেতা আহত হয়েছেন। এ সময় যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান শরীফের ওপর চেয়ার ছুড়ে মারা হয়।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দু’গ্রুপের সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া শুরু হলে একপর্যায়ে তা রূপ নেয় ভয়াবহ সংঘর্ষে। পুরো হল জুড়ে ছিল আতঙ্ক। সংঘর্ষের কারণে নতুন কমিটির সভাপতিসহ বেশ কয়েকজন নেতাকে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখা যায়। আহতদের উদ্ধার করতে এগিয়ে আসেন অন্যরা।
এক যুগ পর স্কটল্যান্ড আওয়ামী লীগের কাউন্সিল অধিবেশন আয়োজন করা হয়। বুধবার মধ্যরাতে এডিনবরায় ইংলিশ স্পিকিং ইউনিয়ন অডিটরিয়ামে বিপুলসংখ্যক নেতাকর্মী যোগ দেন। লন্ডন থেকে যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি, সহ-সভাপতি, সেক্রেটারিসহ প্রথম সারির আটজন নেতা প্রথমবারের মতো স্কটল্যান্ডে আসেন। তবে আওয়ামী লীগের দুটি গ্রুপের মধ্যে নেতৃত্ব নিয়ে সংঘাত সৃষ্টি হতে পারে বলে আশঙ্কা ছিল অনেকের মনে।
কিছুক্ষণ বিরতির পর ভোর ৫টার দিকে শুরু হয় কমিটি গঠন প্রক্রিয়া। রুদ্ধদ্বার বৈঠক শেষে ৭১ সদস্যবিশিষ্ট স্কটল্যান্ড আওয়ামী লীগের নতুন কমিটির নাম ঘোষণা করা শেষ হলে দেখা দেয় উত্তেজনা। ক্ষুব্ধ কর্মীদের একাংশ কমিটি প্রত্যাখ্যান করলে শুরু হয় ভাংচুর ও চেয়ার ছোড়াছুড়ি। এ সময় একটি প্লাস্টিকের চেয়ার এসে পড়ে যুক্তরাজ্য সভাপতি সুলতান মাহমুদ শরীফের কাছাকাছি। তবে শারীরিকভাবে তিনি সুস্থ রয়েছেন বলে জানা গেছে।
অনেকের মতে, নেতৃত্ব নিয়ে জমে থাকা ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশের ফলে এমনটা হতে পারে। তবে যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ব্যারিস্টার আবুল কালাম চৌধুরী বলেছেন, বড় ধরনের কোনো অঘটন ঘটেনি।
সাবেক সাধারণ সম্পাদক জালাল আহমদের উপস্থাপনায় প্রথম পর্বের উদ্বোধন করেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান মাহমুদ শরীফ। সাবেক সভাপতি গোলাম আনিছ চৌধুরীর সভাপতিত্বে স্থানীয় নেতাকর্মীরা ছাড়াও বক্তব্য রাখেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সেক্রেটারি সৈয়দ সাজিদুর রহমান। অতিথি হিসেবে যোগ দেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা হরমুজ আলী, সাজ্জাদ মিয়া, শাহ শামীম, নইম উদ্দিন রিয়াজ, ব্যারিস্টার কালাম চৌধুরী এবং আনসারুল হক।