Amardesh
আজঃঢাকা, শনিবার ২৪ নভেম্বর ২০১২, ১০ অগ্রহায়ণ ১৪১৯, ৯ মহররম ১৪৩৪ হিজরী    আপডেট সময়ঃ রাত ১২.০০টা
 
 সাধারণ বিভাগ
 বিশেষ কর্ণার
 শোক ও মৃত্যুবার্ষিকী
 সাপ্তাহিক
 
আবহাওয়া
 
 
আর্কাইভ: --
 

অষ্টম শ্রেণী পড়ুয়া মেয়েকে বিয়ে দিলেন প্রধান শিক্ষক বাবা

সখীপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি
« আগের সংবাদ
পরের সংবাদ»
এবার নিজের অষ্টম শ্রেণী পড়ুয়া মেয়েকে বিয়ের পিঁড়িতে বসালেন প্রধান শিক্ষক বাবা। টাঙ্গাইলের সখীপুরে প্রধান শিক্ষক বাবার এমন কাণ্ডে বিস্ময় প্রকাশ করেছে স্থানীয় প্রশাসন ও এলাকার সুধীজন।
সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার লাঙ্গুলিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. নুরুল ইসলাম ওই স্কুলে তার অষ্টম শ্রেণী পড়ুয়া মেয়ে নুরুন্নাহারকে একই গ্রামের আমজাদ হোসেনের প্রবাস ফেরত ছেলে আনোয়ার হোসেন আনুর সঙ্গে বিয়ে রেজিস্ট্রি করেন। ওই রাতেই নুরুন্নাহারকে শ্বশুরবাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়। গতকাল দুপুরে বরের বাড়িতে বৌভাতের আয়োজন করা হয়। ওই বৌভাতের অনুষ্ঠানে বর ও কনের আত্মীয়স্বজন অংশ নেন।
নিজের মেয়েকে ‘বাল্যবিয়ে’ দেয়ার বিষয়ে নুরুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার মেয়েকে বিয়ে দেয়া হয়নি। কেবল আংটি পরানো হয়েছে। দু’বছর পর এসএসসি পাস করলে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করা হবে।
বরের বড়ভাই ছানোয়ার হোসেন বলেন, বৃহস্পতিবার রাতে নলুয়ার কাজী হেলালের মাধ্যমে তিন লাখ ৫০ হাজার টাকার দেনমোহরে আমার ছোটভাই আনোয়ার হোসেন আনুর সঙ্গে নুরুল ইসলামের মেয়ে নুরুন্নাহারের বিয়ের রেজিস্ট্রি হয়েছে। তিনি জানান, গতকাল দুপুরে আমাদের বাড়িতে বৌভাতের আয়োজন করা হয়েছে।
কাজী হেলালের কাছে বাল্যবিয়ের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি কোনো বিয়ে রেজিস্ট্রি করেননি বলে জানান।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে ওই স্কুলের একজন শিক্ষক বলেন, একজন সচেতন মানুষ হয়েও নিজের মেয়েকে বাল্যবিয়ে দেয়া অত্যন্ত দুঃখজনক।
সখীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রাজিয়া সুলতানা বলেন, এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পুলিশকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।